এক রাতে ১৫ কোটি টাকার মালিক!

পিবিএ ডেস্ক: কথায় আছে কাপড় খুলতে সময় লাগে কিন্তু কপাল খুলতে সময় লাগে না। এমনই এক ঘটনার সাক্ষী ইন্দোনেশিয়ার জোসুয়া হুটাগালাঙ্ক নামের এক যুবক। ৩৩ বছর বয়সী ওই দরিদ্র এক রাতেই হয়েছেন কয়েক কোটি টাকার মালিক।

ঘটনা খুলে বলা যাক। ইন্দোনেশিয়ার সুমাত্রার কোলাঙ্ক এলাকায় বাড়ির কাছেই কফিন তৈরির কাজ করছিলেন জোসুয়া হুটাগালাঙ্ক। হঠাৎ বিকট একটি শব্দ হয়। আর তার বাড়ির ছাদে ফুটো হয়ে পড়ে কোন এক বস্তু। পরে কোলাঙ্ক জানতে পারেন এটা উল্কাপিণ্ড। ঘরের মেঝেতে প্রায় ১৫ সেন্টিমিটার ঢুকে যায় উল্কাপিণ্ডটি। এ ঘটনায় প্রথমে আতঙ্কিত হন জোসুয়া। এই পাথরটিই তার ভাগ্য পরিবর্তন করে, আর তিনি রাতারাতি কোটিপতি হন।
জোসুয়া হুটাগালাঙ্ক যে উল্কা টুকরা পেয়েছেন তা প্রায় ৪০০ বছরের পুরনো। এটির বাজার দাম ১৮ লাখ ডলার। যা বাংলা টাকায় ১৫ কোটি টাকার বেশি। এই উল্কাটির প্রতি গ্রাম ৮৫৭ ডলারে বিক্রি হয়েছে। এক সংগ্রহকারী এটি কিনেছেন।

এ বিষয়ে ফেসবুক পোস্ট জোসুয়া হুটাগালাঙ্ক লেখেন, হঠাৎ আকাশ থেকে একটি কালো পাথরের মতো পড়েছিল। আমাকে অবাক করেছে। প্রথম যখন এটি পড়ে তখন বাড়ি কেঁপে ওঠে। পড়ার পর এটি অনেক গরম ছিল। পরে এটি ঠাণ্ডা হয়ে যায়।
সূত্র- গালফনিউজ

পিবিএ/এমএসমএস

আরও পড়ুন...