ঐতিহাসিক পার্বত্য চট্টগ্রাম চুক্তির ২২ বছর পূর্তি উপলক্ষে প্রস্তুতি সভা

পিবিএ,খাগড়াছড়ি: ঐতিহাসিক পার্বত্য চট্টগ্রাম চুক্তির ২২ বছর পূর্তি উপলক্ষে প্রস্তুতি সভা করেছে খাগড়াছড়ি জেলা পরিষদ। মঙ্গলবার সকাল ১১টায় জেলা পরিষদের সম্মেলন কক্ষে এ সভার আয়োজন করা হয়। এতে সভাপতিত্ব করেন পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কংজরী চৌধুরী। ১৯৯৭ সালের ২ রা ডিসেম্বর পার্বত্য চট্টগ্রাম চুক্তির পর পাহাড়ে ব্যাপক উন্নয়ন কর্মকান্ড বাস্তবায়ন করছে সরকার। বর্তমানে তারই সুফলও ভোগ করছে পাহাড়ের মানুষ উল্লেখ করে সভা থেকে জানানো হয়, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শান্তির পাশাপাশি পার্বত্যঞ্চলের মানুষের সহাবস্থান ও ভাগ্যন্নোয়নেও কাজ করে চলেছে।

তাই দিনটিকে স্মরণীয় করে রাখতে এবছর ৩ দিনব্যাপী মেলা, বর্ণাঢ্য র‌্যালি, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানসহ সম্মাননা প্রদানের কর্মসূচি হাতে নিয়েছে খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদ। প্রস্তুতি সভায়, খাগড়াছড়ি জেলা পরিষদের জনসংযোগ কর্মকর্তা চিলামং চৌধুরীর সঞ্চালনায় এতে উপস্থিত ছিলেন, খাগড়াছড়ি জেলা পরিষদের নির্বাহী কর্মকর্তা টিটন খীসা, সেনাবাহিনীর খাগড়াছড়ি সদর জোনের অধিনায়ক লেঃকর্ণেল মো. আরাফাত হোসেন, রিজিয়নের প্রতিনিধি জি-টু আই মেজর সালাউদ্দীন, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক হাবিব উল্লাহ মারুফ, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার এমএম সালা উদ্দিন,সদর উপজেলা চেয়ারম্যান শানে আলমসহ জনপ্রতিনিধি, গণমাধ্যমকর্মী, এনজিও ও সরকারী বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

আগামী ১লা ডিসেম্বর পৌর টাইন হল মাঠে মেলার মধ্য দিয়ে শুরু হবে ২২তম পার্বত্য শান্তি চুক্তি বর্ষপূর্তি বাস্তবায়নের কর্মসূচী। ২’রা ডিসেম্বর খাগড়াছড়ি জেলা পরিষদ প্রাঙ্গন থেকে সকালে শান্তির পায়রা বেলুন উড়িয়ে বর্ণাঢ্য র‌্যালির আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন শেষে শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে পৌর টাইন হল মাঠে ডিসপ্লে ও আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। পরে ঐতিহাসিক স্টেডিয়াম মাঠে বিকেলে সাংস্কৃতিক ও কনসার্টসহ ৩ দিন ব্যাপী নানা কর্মসূচী গ্রহণ করেছে খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদ।

ইতি মধ্যে পার্বত্য চুক্তির বর্ষপূর্তিতে সফল ও স্বার্থক করতে “পার্বত্য শান্তি চুক্তির ২২ বছর পূর্তি উদযাপন কমিটি’ ও উপ-কমিটি গঠনের মধ্য দিয়ে ব্যাপক প্রস্তুতি গ্রহণ করা হয়েছে।

পিবিএ/আল-মামুন/বিএইচ

আরও পড়ুন...