পঞ্চগড়ে- উদ্বোধন হলো ‘দোলনচাঁপা এক্সপ্রেস’

ইনসান সাগরেদ,পঞ্চগড়: পঞ্চগড়ে- উদ্বোধন হলো ‘দোলনচাঁপা এক্সপ্রেস।পঞ্চগড় থেকে ঢাকা এবং রাজশাহীর সঙ্গে রেলপথে যাতায়াতের জন্য আন্তঃনগর ট্রেন চালু থাকলেও বিভাগীয় শহর রংপুরের সঙ্গে রেল যোগাযোগে কোন আন্তঃনগর ট্রেন ছিলোনা। অবশেষে রংপুর এবং বগুড়া হয়ে সান্তাহারের সঙ্গে রেল যোগাযোগে যুক্ত হয়েছে নতুন আন্তঃনগর ট্রেন দোলনচাঁপাএক্সপ্রেস।

শনিবার দুপুরে পঞ্চগড় বীর মুক্তিযোদ্ধা সিরাজুল ইসলাম রেল স্টেশন এই ট্রেনটির উদ্বোধন করেন রেলপথ মন্ত্রী এ্যাড. নূরুল ইসলাম সুজন। একই সঙ্গে তিনি উদ্বোধন করেন স্টেশনের নবনির্মিত পার্কিং এরিয়া, এপ্রোচ রোড এবং দৃষ্টিনন্দন গেট।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে রেলপথ মন্ত্রী বলেন, ‘দোলনচাঁপা এক্সপ্রেস’ ট্রেনটি ১৯৮৬ সালে চালু হলেও দিনাজপুর থেকে রংপুর এবং বগুড়া হয়ে সান্তাহার পর্যন্ত চলাচল করতো। ফলে পঞ্চগড় এবং ঠাকুরগাঁওয়ের মানুষ বিভাগীয় শহর রংপুরে যাতায়াতে আন্তঃনগর ট্রেন সুবিধা থেকে বঞ্চিত ছিলো। আপনাদের দীর্ঘদিনের দাবির প্রেক্ষিতে এই ট্রেনটির রুট বর্ধিত করা হলো

মন্ত্রী বলেন, এই ট্রেনটি পঞ্চগড় বীর মুক্তিযোদ্ধা সিরাজুল ইসলাম রেল স্টেশন থেকে প্রতিদিন সকাল ৬টায় ছেড়ে গিয়ে রংপুরে পৌঁছুবে ১০টা ৩৫ মিনিটে আর সান্তাহারে গিয়ে পৌঁছুবে বিকেল ৪টায়। একই ভাবে সান্তাহার থেকে প্রতিদিন সকাল ১১টায় ছেড়ে এসে পঞ্চগড় বীর মুক্তিযোদ্ধা সিরাজুল ইসলাম রেল স্টেশনে এসে পৌঁছুবে রাত ৮টা ২০ মিনিটে। এই ট্রেনে পঞ্চগড় থেকে সান্তাহারের ভাড়া (শোভন চেয়ার) ৩৩৫ টাকা আর রংপুরের ভাড়া ১৮৫ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে।

মন্ত্রী আরও বলেন, পঞ্চগড়বাসী এই ট্রেনযোগে দিনাজপুর, পার্বতীপুর এবং রংপুরে সকালে পৌঁছে অফিস, আদালত, ব্যবসা বাণিজ্যসহ নানাবিধ কাজ শেষে আবার বিকেলে এই ট্রেন যোগেই পঞ্চগড়ে ফিরতে পারবেন।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন রেলওয়ের পশ্চিম অঞ্চলের ব্যবস্থাপক অসীম কুমার তালুকদার।

এসময় উপস্থিত ছিলেন, জেলা প্রশাসক জহুরুল ইসলাম, জেলা পরিষদ প্রশাসক আনোয়ার সাদাত সম্রাট, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রাকিবুল ইসলাম, সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আমিরুল ইসলাম, রেলওয়ে লালমনিরহাট বিভাগীয় ব্যবস্থাপক শাহ সুফী নুর মোহাম্মদ প্রমূখ।

আরও পড়ুন...