প্রতিবন্ধী মেয়েকে ছাদ থেকে ফেলে হত্যা করল পাষন্ড বাবা

পিবিএ,কালীগঞ্জ: ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ উপজেলার চাপালী গ্রামে মরিয়ম খাতুন (৬) নামে এক শারিরীক প্রতিবন্ধী মেয়েকে হত্যা করেছে পাষন্ড বাবা। শনিবার সকালে এ ঘটনা ঘটে। নিহত মরিয়ম চাপালী গ্রামের গ্যারেজ মিস্ত্রি হযরত আলীর মেয়ে।

প্রত্যাক্ষদর্শীরা জানান, শনিবার সকালে বাবা হযরত আলী তার মেয়েকে প্রচন্ড মারধর করে। এরপর মারতে মারতে নিজ বাড়ির ছাদে নিয়ে নিচে ফেলে দেয়। প্রথমে কালীগঞ্জ হাসাপাতালে নিয়ে গেলে যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করা হয়। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে ঢাকায় নেওয়ার পথে মেয়েটি মারা যায়। মেয়েটির বাবা শহরের একটি গ্যারেজ মালিক। বেশ কিছুদিন আগে গাড়ির টায়ার ফেটে তিনি বেশ আঘাতপ্রাপ্ত হন। এরপর থেকেই তিনি মানসিক রোগী হয়ে যান।

কালীগঞ্জ থানার এসআই আবুল খায়ের বলেন, ওই মেয়ের বাবা হযরত আলী তার মেয়েকে ছাদ থেকে ফেলে দেওয়ার ঘটনা স্বীকার করেছেন। তাকে আটক করা হয়েছে। কালীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মাহফুজুর রহমান মিযা জানান, এলাকা থেকে কেউ আমাকে কোন অভিযোগ করেনি ছাদ থেকে ফেলে দেবার কথা শুনলাম আপনাদের মুখথেকে । লাশ ময়না তদন্তের জন্য ঝিনাইদহ পাঠানো হচ্ছে।

পিবিএ/আরিফ মোল্ল্যা/বিএইচ

আরও পড়ুন...