বাবাকে দেখার আগেই লাশ হলো দুই ভাই

রাজন্য রুহানি,জামালপুর: অসুস্থ বাবাকে দেখতে মটরসাইকেলে গাজীপুর থেকে জামালপুরের নান্দিনার উদ্দেশ্যে আসছিলেন দুই ভাই। পথে ময়মনসিংহের ত্রিশাল উপজেলার কাজীর শিমলা এলাকায় পৌঁছলে চলন্ত পিকআপের সাথে তাদের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই প্রাণ হারান তারা।

মঙ্গলবার (২ নভেম্বর) সকালে ঘটে মর্মান্তিক এই সড়ক দুর্ঘটনা। সহোদর দুই ভাইয়ের এমন মৃত্যুতে পরিবারসহ এলাকায় নেমেছে শোকের ছায়া।

নিহত দুই ভাই ফিরোজ মোর্শেদ (৩৫) ও তৌহিদুল ইসলাম জিহাদ (২৭) নান্দিনার খড়খড়িয়া পালপাড়া গ্রামের আব্দুল আজিজের ছেলে।

পারিবারিক সুত্রে জানা যায়, বাবাকে দেখার জন্য ছোট ভাই চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র তৌহিদুল ইসলাম জিহাদ বড় ভাই ফিরোজ মোর্শেদের সঙ্গে যোগাযোগ করলে বড় ভাই তাকে গাজীপুর আসতে বলেন। কথামতো ছোট ভাই গাজীপুরে এসে আজ অসুস্থ বাবাকে দেখত মোটরসাইকেল যোগে গাজীপুর থেকে জামালপুর সদরের নান্দিনার খড়খড়িয়ায় রওনা দেন। তারা সকালে ত্রিশাল উপজেলার কাজীর শিমলা এলাকায় পৌছলে চলন্ত পিকআপের সাথে তাদের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই প্রাণ হারান তারা।

জামালপুর সদর উপজেলার ৯ নং রানাগাছা ইউপির সাবেক মেম্বার নুরুন্নবী নবু জানান, খড়খড়িয়া পালপাড়ায় অসুস্থ পিতা আব্দুল আজিজকে দেখতে মটরসাইকেল যোগে গাজীপুর থেকে আসছিলেন ওই দুই ভাই। কিন্তু ত্রিশালের কাজীর শিমলায় পৌঁছলে পিকআপের সঙ্গে সংঘর্ষে ঘটনাস্থলেই তারা প্রাণ হারান।

তিনি আরও জানান, ছোট ভাই তৌহিদুল ইসলাম স্কলারশিপ পেয়েছেন। আগামি মাসে তার রাশিয়া যাবার কথা ছিল। এ ঘটনায় পুরো এলাকাজুড়ে শোকের মাতম চলছে। সবাই অপেক্ষা করছে লাশের জন্য।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, ময়নাতদন্তের জন্য লাশ দুটিকে ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্ত শেষে তাদের জামালপুর পাঠানো হবে।

 

আরও পড়ুন...