ভালুকায় বেইলী ব্রীজ ভেঙ্গে বালি বোঝাই ট্রাকে নদীতে


আলী আকবর সাজু,পিবিএ, ভালুকা : ভালুকা-মল্লিকবাড়ী সড়কের বেইলি ব্রিজ দিয়ে অতিরিক্ত বালি বোঝাইয়ের কারণে বেইলী ব্রীজ ভেঙ্গে ট্রাক নদীতে পড়ে গেছে। ফলে ওই সড়কে যান চলাচল বন্ধ রয়েছে। এতে বড় যানবাহগুলো প্রায় ৩০ কিলোমিটার পথ ঘুরে চলাচল করতে হচ্ছে। স্থানীয় প্রশাসন ও জনপ্রতিনিধি ঘটনাস্থল পরিদর্শণ করেছেন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ব্রিজটি ঝুকিপূর্ণ ৫টনের অধিক মালামাল নিয়ে ব্রিজটি দিয়ে যান চলাচল নিষিদ্ধ থাকলেও এলাকাবাসীর নিষেধ উপেক্ষা করে বৃহস্পতিবার সকালে প্রায় ৩০ টনের অধিক বালি ভর্তি একটি ড্রাম ট্রাক খিরু নদীর ওই ব্রিজটিতে উঠলে বেইলি ব্রিজটি ভেঙ্গে নদীতে পড়ে যায়।

এসময় ট্রাকের চালক ও তার সহকারী দ্রুত বের হয়ে যেতে পারলেও ব্রিজ দিয়ে হেটে যাওয়া শহিদ নাজিম উদ্দিন উচ্চ বিদ্যালয়ের ৯ম শ্রেণীর ছাত্র শাকিল আহত হয়েছেন। দুর্ঘটনা কবলিত ট্রাকটির চালক ও সহকারী তাৎক্ষনিক পালিয়ে যায়।
স্থানীয়রা আরও জানান, ১০ চাকার ড্রাম ট্রাক দিয়ে বালি বহন না করার জন্য দীর্ঘদিন যাবৎ নিষেধ করেছিল এলাকাবাসি, কিন্তু এলাকাবাসির নিষেধ উপেক্ষা করে বালি ব্যবসায়ীরা পরিবহন করে আসছে।

দুর্ঘটনার পর থেকে মল্লিকবাড়ি, ডাকাতিয়া, আঙ্গারগাড়া ও সখিপুরের যানবাহনগুলো সিডষ্টোর হয়ে ঘুরে এসে মল্লিকবাড়ি মোড় দিয়ে যাতায়াত করছে।

সড়ক ও জনপথের নির্বাহী প্রকৌশলী ইঞ্জিনিয়ার মো. ওয়াহিদুজ্জামান জানান, ‘খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে বেইলি ব্রিজের মিস্ত্রি পাঠিয়েছি। আমাদের কাছে বরমি সড়কের একটি অতিরিক্ত বেইলী ব্রিজ রয়েছে সেটা খুলে আশা করছি আজ কালের মাঝেই মেরামত কাজ শুরু করব। তাছাড়া এখানে আমরা স্থায়ী পিসি গার্ডার ব্রিজ নির্মানের পরিকল্পনা হাতে নিয়েছি।’
উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আবুল কালাম আজাদ জানান, খবর পেয়ে দূর্ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। অল্প সময়ের মধ্যে জনগন ও যানবাহন যাতায়াতের জন্য ব্যবস্থা করা হবে।

স্থানীয় সংসদ সদস্য আলহাজ্ব কাজিম উদ্দিন আহমেদ ধনু জানান, ব্রীজ ভাঙ্গার খবর পেয়েই যোগাযোগ মন্ত্রীর সাথে কথা বলেছি। আশা করি ব্রীজটি নির্মাণ করা হবে।

পিবিএ/সাজু/জেডআই

আরও পড়ুন...