ভাড়াটিয়াকে কুপিয়ে আহত করলেন বাড়ীওয়ালা

ভাড়াটিয়া
শান্ত মিয়াকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে পিটিয়ে ও কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করে। হাসপাতাল ভর্তি

পিবিএ, চৌদ্দগ্রাম (কুমিল্লা) : কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে ভাড়াটিয়ার স্ত্রী কু-প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় হামলা চালিয়ে দুইজনকে আহত করেছে। এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়েরের পর বাসার মালিক শাহিন মিয়াকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গতকাল রোববার তাকে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।

জানা গেছে, দীর্ঘদিন ধরে চৌদ্দগ্রাম পৌরসভার কিং শ্রীপুর গ্রামের মৃত কালু মিয়ার ছেলে শাহিন মিয়ার বাসা ভাড়া নিয়ে একই গ্রামের শান্ত মিয়া স্ত্রীসহ বসবাস করতো। সম্প্রতি শাহিন মিয়ার ছেলে ইত্বিক মিয়া শান্ত মিয়ার স্ত্রী লিমা আক্তারকে কু-প্রস্তাব দেয়াসহ জোরপূর্বক ঘরের জিনিসপত্র নিয়ে যেতো। বিষয়টি ইত্বিক মিয়ার বাবা শাহিন মিয়াকে জানালে উল্টো ভাড়াটিয়ার উপর ক্ষিপ্ত হয়ে বুধবার বিকেলে শান্ত মিয়াকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে পিটিয়ে ও কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করে।

এরপর স্থানীয়দের সহায়তায় আহত শান্ত মিয়াকে উদ্ধার শেষে চৌদ্দগ্রাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়। পরে আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাকে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়। বর্তমানে শান্ত মিয়া সেখানে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

এ ঘটনায় শান্ত মিয়ার বোন মোসাঃ স্বর্ণা আক্তার বাদি হয়ে ইত্বিক মিয়া ও তার বাবা শাহিন মিয়াসহ অজ্ঞাতনামা আরও ২-৩ জনের বিরুদ্ধে থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।

পিবিএ/জেডআই

আরও পড়ুন...

ঘরে বসেই নিজের বিকাশ একাউন্ট খুলুন