মালদ্বীপে প্রবাসীদের মাইগ্রেশন নিয়ে রেড ক্রিসেন্টের কর্মশালা

 মো: এমরান হোসেন তালুকদার পিবিএ, মালদ্বীপ: বাংলাদেশ রেডক্রিসেন্ট সোসাইটি (BDRCS) এবং মালদ্বীপ রেড ক্রিসেন্ট (MRC)এর যৌথ উদ্যোগে মালদ্বীপে গত ০৯-১০ নভেম্বর ২০১৯ “Humanitarian Dialogue on Migration” শীর্ষক কর্মশালার আয়োজন করা । গত শনিবার  ০৯ নভেম্বর মালদ্বীপের হোটেল Jen এর হলরোমে শীর্ষক কর্মশালার উদ্বোধন করা হয়। ইটালিয়ান রেড ক্রস, রেড ক্রস ইন্টারন্যাশনাল ফেডারেশন (জেস), বাংলাদেশ রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি (BDRCS), মালদ্বীপ রেড ক্রিসেন্ট (MRC) কর্মশালায় অংশগ্রহণ করেন।


কর্মশালায় অভিবাসন সুযোগ সূবিধাসহ মানবিক ভূমিকা সর্ম্পকীয় আলোকপাত করা হয়, যা একটি নতুন প্লাটফর্ম সৃষ্টি করেছে। অভিবাসন বিষয়ক সমস্যা নিরুপণে পরিকল্পনা, প্রস্তাবনা ও পদক্ষেপ বাস্তবায়নে International Federation of Red Cross I Red Crescent Societies এর প্রত্যক্ষ সমর্থন ও সহযোগিতার ক্ষেত্র সুস্পষ্ঠভাবে প্রতিফলিত হয়। ভবিষ্যতে পারস্পরিক সহযোগিতা ও অংশীদারত্বের সুযোগ এর ক্ষেত্র বাড়ানোর জন্য এ সময়ে মালদ্বীপ রেডরিড ক্রিসেন্ট এবং বাংলাদেশ রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি (BDRCS), এর মধ্যে একটি সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয়।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উক্ত কর্মশালার প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, মালদ্বীপের অর্থনৈতিক উন্নয়ন মন্ত্রী উজ ফয়েজ ইসমাইল । বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, মালদ্বীপের মৎস্য, সামুদ্রিক ও কৃষি মন্ত্রী এম.এস.ওয়াজেদ, মালদ্বীপস্থ বাংলাদেশ দূতাবাসের রাষ্ট্রদূত রিয়ার এডমিরাল আখতার হাবীব। এছাড়া ও আরো উপস্থিত ছিলেন, অভিবাসনের জন্য আন্তর্জাতিক সংস্থার মালদ্বীপের বিভাগের প্রধান, মালদ্বীপ মানাধিকার কমিশন, মালদ্বীপ ইমিগ্রেশন, সহ সরকারি উচ্চ পদস্থ কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

উক্ত কর্মশালায় বিশেষ অতিথি, মালদ্বীস্থ বাংলাদেশ দূতাবাসের রাষ্ট্রদূত রিয়ার এডমিরাল আখতার হাবীব তার বক্তব্যে মালদ্বীপে কর্মরত প্রবাসী (কন্সট্রাকশন ও চাকুরিজীবী) সেক্টরে বাংলাদেশীদের ক্ষেত্র বিশেষে অবৈধ শ্রমশক্তি, নিয়োগ জালিয়াতি, অপরিশোধিত শ্রমের মজুরি ও ঋণের বোঝা, ট্রাভেল ডকুমেন্ট এবং কর্মক্ষেত্রে আইডি কার্ডের বাজেয়াপ্তকরণ এসব বিষয়ে আলোকপাত করেন। তিনি আরও বলেন গত ০২ (দুই) বছর ধরে অবিরামভাবে মালদ্বীপ সরকারকে বাংলাদেশী শ্রমিকদের নিয়মিতকরণ এর বিষয়ে কূটনৈতিক প্রচেষ্টা অব্যাহত রেখেছিলেন । সে মোতাবেক মালদ্বীপস্থ বাংলাদেশ দূতাবাসের পক্ষে রাষ্ট্রদূত বিভিন্ন সময়ে মালদ্বীপের পররাষ্ট্র মন্ত্রনালয়, অর্থনৈতিক উন্নয়ন মন্ত্রণালয়, প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়, মালদ্বীপের ভাইস প্রেসিডেন্টে, প্রেসিডেন্ট এর সঙ্গে অবৈধ বাংলাদেশীদের বৈধকরণের বিষয়ে আলোচনা করেন। ফলশ্রুতিতে মালদ্বীপের প্রেসিডেন্টের নির্দেশ মোতাবেক মালদ্বীপে অবৈধ বাংলাদেশী শ্রমিকদের নিয়মিতকরণের বিষয়ে উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। এছাড়া ও মালদ্বীপে বাংলাদেশীদের ক্ষেত্র মানবিক সহায়তা করার জন্য মালদ্বীপ রেড ক্রিসেন্ট কে বিশেষভাবে উদ্যেগী হওয়ার অনুরোধ করেন।

কর্মশালায় বাংলাদেশ রেডক্রিসেন্ট সোসাইটি (BRCS) এর চেয়ারম্যান হাফিজ আহমেদ মজুমদার তার বক্তব্যে উল্লেখ করেন, যে মালদ্বীপে ৫০ শতাংশেরও বেশী বাংলাদেশী প্রবাসী রয়েছে। অভিবাসীদের ঝুঁকির মধ্যে কিভাবে সহায়তা, সুরক্ষা ও অন্যান্য মানবিক বিষয়াবলী মোকাবিলা ও সহযোগিতার হাত বাড়ানো যায়, এজন্য মালদ্বীপ রেড ক্রিসেন্ট এর সাথে সন্মিলিতভাবে কিছু করার প্রচেষ্টা তাদের আনন্দিত করেছে।

মালদ্বীপ রেড ক্রিসেন্ট (MRC) এর প্রধান তার বক্তব্যে উল্লেখ করেন যে, মালদ্বীপের মোট জনবলের ২৫ শতাংশের বেশী জনসংখ্যার প্রবাসী শ্রমিক বর্তমানে মালদ্বীপে অবস্থান করছে। এই অভিবাসীদের ৫৭ শতাংশই বাংলাদেশী যাদের স্বাস্থ্যগত সেবা, জীবনযাত্রার মান ও পরিবেশ উন্নত করা যায় তা নিয়ে বিস্তারিত আলোকপাত করেন।
১০ নভেম্বর মালদ্বীপে অবস্থানরত বাংলাদেশী অভিবাসীদের স্বাস্থ্যগত সেবা, জীবনযাত্রার মান ও পরিবেশসহ বিভিন্ন সুযোগ সুবিধার কৌশলগত দিক নিয়ে বিস্তারিত আলোচনার মাধ্যমে কর্মশালার সমাপ্তি হয়।

পিবিএ/এমরান/ জেডিআই

আরও পড়ুন...