সাদা রঙের তীব্র বিষাক্ত বিরল সাপ উদ্ধার

পিবিএ ডেস্ক: বিরল সাদা রঙের একটি বিষধর সাপ উদ্ধার করা হয়েছে। তীব্র বিষাক্ত এ সাপ ঘিরে এলাকায় সৃষ্টি হয়েছে ব্যাপক চাঞ্চল্য।
ভারতের পশ্চিমবঙ্গের বীরভূম জেলায় সিউড়ি থানা এলাকার রোস্তানপুর গ্রামে শ্বেতরোগে আক্রান্ত বিষধর কালাচ সাপটি উদ্ধার করা হয়। কালাচ সাপের ত্বকের রঙ নির্ধারণকারী জিনের অস্বাভাবিক ঘাটতি থাকলে গায়ের রঙ এমন হয়। কয়েক হাজারে এমন ঘটনা একটি ঘটে। এ ধরনের সাপ উদ্ধারের ঘটনা বিরল।

এ প্রকৃতির সাপের বিষ নিউরোটক্সিক; যা স্নায়ুতন্ত্রকে অকেজো করে দেয়।

তীব্র বিষাক্ত এই সাপ কাউকে কামড়ালে বিষ দ্রুত শরীরে ছড়িয়ে পড়ে। বিরল এ সাপের খবর পাওয়ার পর সাপটি উদ্ধার করতে যান স্থানীয় একটি স্কুলের শিক্ষক। তিনি সাপটি না মারতে গ্রামবাসীকে বোঝান। পরে সাপটি উদ্ধার করে স্থানীয় বন্যপ্রাণী দফতরের কর্মকর্তাদের কাছে হস্তান্তর করেন।

দ্বীনবন্ধু বিশ্বাস নামে ওই শিক্ষক বলেন, কালাচ সাপের এক মিলিগ্রাম বিষ একজন মানুষের প্রাণহানির জন্য যথেষ্ট। এ সাপের কামড়ে শরীরে জ্বালা-পোড়া, ফোলা বা অন্য কোনো লক্ষণ দেখা যায় না। এমনকি দাঁতের চিহ্নও থাকে না। বিষক্রিয়ার লক্ষণ ২ থেকে ২০ ঘণ্টা পরও দেখা দিতে পারে।

এছাড়া ভোর রাতে পেটে অসহনীয় যন্ত্রণার পাশাপাশি গলা ব্যথা, শ্বাসকষ্ট, অস্থিতে জ্বালা এবং চোখের পাতা বন্ধ হয়ে আসে।

পিবিএ/ইকে

আরও পড়ুন...