‘সারাদেশে হাসপাতাল গুলোতে পাবলিক টয়েলেট নির্মান করা হবে’


পিবিএ, মানিকগঞ্জ: স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী জাহিদ মালেক স্বপন বলেছেন, সেবার মানসিকতা নিয়ে চিকিৎসক হতে হবে। মেডিকেল কলেজের শিক্ষার্থীদের দায়বদ্ধতা রয়েছে জনগনের কাছে। জনগনের ট্যাক্সের টাকায় মেডিকেল কলেজের স্থাপনা যেমন গড়ে ওঠছে তেমনি ট্যাক্সের টাকায় শিক্ষার্থীদের পড়াশুনার ব্যয়ও নির্বাহ হচ্ছে। শিক্ষার্থীদের মনে রাখতে হবে ভালমানের ডাক্তার হয়ে দেশের মানুষের সেবা করতে হবে।
শুক্রবার দুপুরে মানিকগঞ্জ কর্নেল মালেক মেডিকেল কলেজের একাডেমী ভবন ও ছাত্র-ছাত্রীদের পৃথক হোস্টেল উদ্বোধন এবং ৬ষ্ঠ ব্যাচের শিক্ষার্থীদের নবীনবরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, খুব শিগগিরই সারা দেশে মেডিকেল বর্জ্য শোধানাগার (ওয়্যাস্ট ট্রিটমেন্ট প্ল্যান্ট) স্থাপন করা হবে। এটা স্বাস্থ্য সেবার নতুন উদ্যোগ। এতে করে মেডিকেল বর্জ্যরে কারণে পরিবেশ দুষণ রোধ ও রোগ প্রতিরোধ হবে। জেলা হাসপাতাল ও সরকারি মেডিকেল কলেজেগুলোতে মাল্টিপারপাস ভবন নির্মানের পরিকল্পনাও হাতে নেওয়া রয়েছে। এরই মধ্যে পাইলট প্রকল্প হিসেবে মানিকগঞ্জ কর্নেল মালেক মেডিকেল কলেজে কাজ শুরু করা হয়েছে।

জাহিদ মালেক বলেন, সারা দেশে হাসপাতাল গুলোতে পাবলিক টয়েলেট নির্মান করা হবে। পুরনো ৮টি মেডিকেল কলেজে হাসপাতালে আধুনিক ভবন নির্মান করা হবে।

কর্নেল মালেক মেডিকেল কলেজের লেকচার গ্যালারীতে ৬ষ্ঠ ব্যাচের শিক্ষার্থীদের নবীনবরণ অনুষ্ঠানে মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ আখতারুজ্জামানের সভাপতিত্বে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন জেলা প্রশাসক এসএম ফেরদৌস, পুলিশ সুপার রিফাত রহমান শামীম, কর্নেল মালেক মেডিকেল কলেজের প্রকল্প পরিচালক ডাক্তার দেলোয়ার হোসেন, ডাক্তার শিশির রঞ্জন দাস, ৬ষ্ঠ ব্যাচের শিক্ষার্থী ইসরাত জাহান মুন, মোঃ ওয়ালি উল্লাহ।

এর আগে মন্ত্রী জাহিদ মালেক স্বপন কর্নেল মালেক মেডিকেল কলেজের একাডেমী ভবন ও পৃথক দুটি ছাত্র ছাত্রীদের জন্য হোস্টেল উদ্বোধন করেন। এতে মেডিকেল কলেজের নিজস্ব ক্যাম্পাসে যাত্রা শুরু হলো।

পিবিএ/মনিরুল ইসলাম মিহির/জেডআই

আরও পড়ুন...