রাজশাহীতে আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে জুয়ার আসর থেকে গ্রেফতার ৭

পিবিএ রাজশাহী: দীর্ঘদিন ধরেই জুয়ার আসর বসছিল রাজশাহীর পবা উপজেলার হড়গ্রাম ইউনিয়নের ৩ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে। অবশেষে গতকাল শনিবার দিবাগত রাতে নগরীর উপকণ্ঠে দলীয় কার্যালয়টিতে অভিযান চালায় নগরীর কাশিয়াডাঙ্গা থানা পুলিশ।

সেখান থেকে গ্রেফতার করা হয় সাতজনকে। তারা হলেন, মতিউর রহমান (৫৩), হারান চন্দ্র দাস (৪২), হাসান আলী (৩৫), জামাল উদ্দিন (৪৮), ইউসুফ আলী (৫০), আমজাদ হোসেন (৪০) ও রাজু হোসেন (৩৪)। এদের মধ্যে হারান হড়গ্রাম ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সহ-সম্পাদক। আর মতিউর ওয়ার্ড কৃষক লীগের সভাপতি।


পুলিশ বলছে, জুয়া খেলার সময় হাতেনাতে তাদের গ্রেফতার করা হয়। এ সময় তাদের কাছ থেকে জুয়া খেলার তাস ও নগদ টাকা জব্দ করা হয়। অভিযানের সময় ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি শাহজাহান আলীসহ তিনজন পালিয়ে গেছেন।

কাশিয়াডাঙ্গা থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনসুর আলী আরিফ জানান, তাদের থানার বালিয়া এলাকায় হড়গ্রাম ইউনিয়নের ৩ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের এ কার্যালয়। সেখানে দীর্ঘদিন ধরে জুয়ার আসর বসে বলে তারা খবর পান। এরপরই সেখানে পুলিশ পাঠানো হয়। এ সময় জুয়া খেলার সময় সাতজনকে গ্রেফতার করা হয়।

এ নিয়ে তাদের বিরুদ্ধে থানায় মামলা করা হয়েছে। রোববার দুপুরের দিকে তাদের আদালতের মাধ্যমে কারাগারেও পাঠানো হয়েছে।

স্থানীয়রা জানান, ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি শাহজাহান আলী দলীয় কার্যালয়ে জুয়ার আসর বসিয়ে কমিশন আদায় করতেন। প্রতিরাতেই বসতো জুয়ার আসর। কিন্তু ভয়ে কেউ এর প্রতিবাদ করার সাহস পেতেন না। কেউ একজন গোপনে থানায় খবর দিলে পুলিশ এ অভিযান চালায়।

এদিকে, শনিবার দিবাগত রাতে নগর পুলিশ ৫৮ জনকে গ্রেফতার করে। অভিযানে বিভিন্ন ধরনের মাদক উদ্ধার করা হয়। আরএমপির মুখপাত্র গোলাম রুহুল কুদ্দুস এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। গ্রেফতারকৃতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে বলে জানান তিনি।

পিবিএ/জেডআই

আরও পড়ুন...

ঘরে বসেই নিজের বিকাশ একাউন্ট খুলুন